আজ রবিবার, ২২ এপ্রিল ২০১৮ ইং, ০৯ বৈশাখ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



শ্রীলংকায় মুসলিমবিরোধী দাঙ্গায় অর্থদাতাদের খুঁজছে পুলিশ

Published on 10 March 2018 | 3: 41 am

শ্রীলংকায় মুসলমানদের বিরুদ্ধে সিংহলি বৌদ্ধদের দাঙ্গায় সন্দেহভাজন ১০ মূলহোতা বিদেশি কোনো সহায়তা কিংবা অর্থ পেয়েছে কিনা, তা খতিয়ে দেখছে দেশটির পুলিশ।

দাঙ্গাকারী গোষ্ঠীর নেতা অমিথ জিওয়ান উইরাসিংহি ও আরও ৯ জনকে বৃহস্পতিবার আটক করা হয়েছে।-খবর রয়টার্স।

দাঙ্গাকবলিত জনপ্রিয় পর্যটন নগরী ক্যান্ডিতে মুসলমানদের মসজিদ ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানে হামলার ঘটনায় এখন পর্যন্ত দুই ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।

গত রোববার থেকে এই দাঙ্গা শুরু হয়েছে। সন্দেহভাজন ১০ ব্যক্তিকে ১৪ দিন করে রিমান্ডে নেয়া হয়েছে। তাদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কলম্বোয় নিয়ে যাওয়া হয়েছে। আটকদের তিনজন ক্যান্ডির ও বাকিরা বাইরের জেলার।

কলম্বোতে দেশটির পুলিশের মুখপাত্র রুয়ান গুনাসেকারা বলেন, কারা এতে অর্থায়ন করেছে, তাদের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা কী, স্থানীয় কোনো রাজনীতিবিদ তাতে জড়িত কিনা এবং এতে কোনো বিদেশির যোগসাজশ আছে কিনা, আমরা তা খুঁজে বের করার চেষ্টা করছি।

তিনি বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় ছয়টি ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানে হামলার খবর পাওয়া গেছে। এ পর্যন্ত ৬৫ জনকে আটক করা হয়েছে।

রয়টার্সের প্রতিবেদক বলেন, ক্যান্ডির শহরতলিতে তিনি একটি বাড়ি অগ্নিকাণ্ডে ভস্মীভূত হতে দেখেছেন। মন্ত্রিপরিষদের মুখপাত্র দায়াসিরি জায়াসেকারা বলেন, সহিংসতা নিয়ন্ত্রণে বিভিন্ন জায়গায় পুলিশ ব্যর্থ হয়েছে।

শ্রীলংকায় দুই কোটি ১০ লাখ লোকের মধ্যে ৭৫ শতাংশ সিংহলি বৌদ্ধ, মাত্র ১০ শতাংশ মুসলমান রয়েছে।

মুসলিম রোহিঙ্গাদের শ্রীলংকায় আশ্রয় নেয়ার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে আসছে কিছু বৌদ্ধ জাতীয়তাবাদী। আবার কোথাও সিংহলিরা মুসলমানদের মসজিদ ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান রক্ষায় সক্রিয় ভূমিকা রেখেছেন।

মুসলমানদের বিরুদ্ধে দাঙ্গার প্রতিবাদে কয়েক সিংহলি রাজধানী কলম্বোয় শুক্রবার বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছেন।

409Shares


Advertisement

আরও পড়ুন