আজ রবিবার, ২৪ জুন ২০১৮ ইং, ১০ আষাঢ় ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



আমবাতে কী করবেন

Published on 25 January 2018 | 3: 45 am

ত্বকের বিভিন্ন প্রকার অ্যালার্জির মধ্যে আর্টিকেরিয়া বা আমবাত অন্যতম। এতে শরীর চাকা ও লাল হয়ে ফুলে উঠে এবং ভীষণ চুলকায়। ঠোঁটে, চোখের ভেতর ও শ্বাসনালীতেও এ অ্যালার্জি হতে পারে। আর্টিকেরিয়ার রোগীদের শতকরা ২০ জন জন্মগতভাবে এ সমস্যায় ভুগে থাকেন।

একিউট আর্টিকেরিয়া : এতে দ্রুত উপসর্গ দেখা যায় আবার খুব দ্রুতই মিলিয়ে যায়।

ক্রনিক আর্টিকেরিয়া : ৬ সপ্তাহের বেশি, কারও কারও মাসের পর মাস এ চুলকানি থাকে। ৮০ ভাগ ক্ষেত্রে এর সুনির্দিষ্ট কারণ খুঁজে পাওয়া যায় না।

সম্ভাব্য কারণ হচ্ছে-

খাবার : গরুর গোশত, চিংড়ি, ইলিশ, পুঁটি, বোয়াল, শোলমাছ, বেগুন, কুমড়া, কচু।

ওষুধ : পেনিসিলিন, সালফার গ্রুপের ওষুধ, অ্যাসপিরিন ও অন্যান্য ব্যথানাশক ওষুধ, উচ্চ রক্তচাপ কমানোর ওষুধ যেমন- বিটা ব্লকারস, এসিই ইলজিবিটর, ঘুমের ওষুধ, ভ্যাকসিন, ইনসুলিন, জন্মনিয়ন্ত্রণ বড়ি।

অসুখ : থাইরয়েড, এসএলই, রিউমাটরেড আর্থ্রাইটিস, হেপাটাইসি বি, ক্যান্সার।

সূর্যরশ্মি ও ঠাণ্ডা থেকেও আমবাত হতে পারে।

প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে, অ্যালারজেন থেকে দূরে থেকে, ওষুধ খেয়ে ও অ্যালার্জি ভ্যাকসিন দিয়ে এ সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।

 


এখানে খুজুন


আরও পড়ুন