আজ বুধবার, ১৫ আগষ্ট ২০১৮ ইং, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



নূন্যতম পূনর্বাসনে জনপ্রতিনিধির হস্তক্ষেপ কামনা করছি

Published on 06 January 2018 | 8: 54 am

সন্দ্বীপের চারদিকে বেড়িবাঁধ নির্মান ও সংস্কারের প্রয়োজনে বেড়িবাঁধে বসবাসরতদের উচ্ছেদ করা হয়েছে তাদের বিকল্প কোন ব্যবস্থা না করেই। এতে করে বেড়িবাঁধে বসবাসরত মানুষের ভোগান্তি চরম আকার ধারণ করে। প্রচন্ড শীত ও কুয়াশা, খাবার পানি সংকট, গরম জামা কাপড়ের সংকটের মধ্য দিয়ে দিনযাপন করছেন তারা। তাদের সেই করুন দৃশ্য সরেজমিনে প্রতক্ষ্য করেছেন মানবাধীকার নেত্রী জাহান নুসরাত আাঁখি। তার ফেসবুকে ষ্টাটাসটি  সোনালী নিউজের পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হল।

——————————————————————————————————————————

আমি আরাধ্যা,বুকে লালন করে বড় হয়েছি আরাধ্যারই মা হব।শিশুদের ভালোবাসি অনেক সে বস্তির রেললাইনের কিংবা পুকুরপাড়ের কিনা ভেবে দেখিনি।একটা স্বপ্ন পাকাকরণ প্রকল্পে শত সহস্র আরাধ্যার খুব ছোট ইচ্ছেগুলি আজ বিপন্ন। খোলা আকাশের নিচে রাত্রিযাপন….ঘর, জমি, ত্রাণ পাবে এই আশা দুরাশাও হতে পারে কিন্তু শীতবস্ত্র পাবে এমনতো আশা করা যায়।

প্রিয় বিত্তবান সমাজ এদের হাতটা একটু ধরুন!!

প্রতি ১০০পরিবারে ১০/১৫ পরিবার সম্পূর্ণই ছিন্নমূল। স্বামী নেই, স্বামী পরিত্যক্তা,নিঃসন্তান, বৃদ্ধা অনেকেই আছেন সরকারী ভাতাও পাচ্ছেন আবার নিরংকুশ তদারকির অভাবে কেউ বঞ্চিতও হচ্ছেন।এসব নিয়ে তেমন হাহুতাশ দেখিনি শুধু তাদের একটু সহযোগীতা চাই।এরা নিবন্ধনকৃত বাঙ্গালী নদীভাঙা সন্দ্বীপপা, জাতীয় পরিচয়পত্রধারী অধম নাখান্দা নালায়েক।

মাননীয় প্রাণপ্রিয় দেশদরদী জননী আমার, আপনি দয়ার সাগর। আমার স্বাধীন বাংলায় রুহিঙ্গার জায়গা হলে আমার জায়গা কই?

এই শীতের প্রচন্ডতায় মানবতা চরমভাবে বিপন্ন হতে চলেছে। এই জড়োসরো দুর্বল মানুষগুলির একটাই আর্জি প্রিয় মাননীয় এমপি দ্বীপরত্ন মাহফুজুর রহমান মিতা নূন্যতম পূনর্বাসনে আপনার আশু হস্তক্ষেপ কামনা করছি!!

বস্তি উচ্ছেদকে কেন্দ্র করে অতিমাত্রার দুঃশ্চিন্তার ফলে মৃত্যুবরণকারী দুজনের পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর বিনীত অনুরোধ রইলো। নিরাপদ হোক এই অবহেলিত জীবনগুলি।
রাস্তা যেখানে আজ মসৃণ
জীবন সেখানে আজ স্থবির।😞😞


এখানে খুজুন


আরও পড়ুন