আজ শনিবার, ১৮ আগষ্ট ২০১৮ ইং, ০৩ ভাদ্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



রিয়ার অকাল মৃত্যুতে দোয়া ও শোক প্রস্তাব সন্দ্বীপ টাউন সোসাইটির ৩য় বৈঠক ও মতবিনিময় সভায়

Published on 02 January 2018 | 4: 38 am

:: শেখ আলমগীর শাহনেওয়াজ সাগর ::

“মোরা ভোরের বেলায় ফুল তুলেছি
দুলেছি দোলায়,
বাজিয়ে বাশি গান শুনেছি বকুলের তলায় ।
হায় মাঝে হলো ছাড়াছাড়ি গেলেম কে কোথায়
আবার দেখা যদি হলো সখা প্রানের মাঝে আয় ।”

কবি গুরু যেন গানটি আমাদের জন্যই সৃষ্টি করেছিলেন।
সফল, সুন্দর ও অসংখ্য দেশ বিদেশের টাউনবাসীদের উপস্থিতিতে শেষ হলো “সন্দ্বীপ টাউন সোসাইটির “তৃতীয়
বৈঠক ও মত বিনিময় সভা ।
আমাদের সবার প্রিয় ছোট বোন রিয়ার অকাল মৃত্যুতে
দোয়া মাহফিল ও শোক প্রস্তাবের মাধ্যমে শুরু হয় আজকের সভাটি ।

আজকের সভায় সভাপতি ছিলেন টাউনের প্রবীন ব্যাবসায়ী জনাব মানু সওদাগর ।

সন্দ্বীপ টাউন সোসাইটির ” প্রধান সমন্বয়ক জামাল হোসেন মনজু ভাই এর সাবলীল সূচনা বক্তব্যের মাধ্যমে শুরু হয় ৩য় বৈঠক ও মতবিনিময় সভার কর্মযজ্ঞ ।

ঢাকা থেকে আবদুল আউয়াল সবুজ ভাই ও সোহাগের যোগদান, টি ভি প্রযোজক মাইনউদ্দিন, জার্মান আওয়ামীলীগ এর সাধারন সম্পাদক প্রিয় স্বপন ভাই ও লন্ডন প্রবাসী বন্ধু আলম, সিডনি প্রবাসী সুমনের উপস্থিতি অনেককেই আপ্লুত করেছে ধারুন ভাবে ।

নাহার আপা, আবদুর রহিম স্যার, ইউসুফ ভাই, মোশারফ ভাই, আজমত আলী বাহাদুর, মোমিন চৌধুরী, হুমায়ুন কবির ভাই, পারভেজ, রিজভী, শাহীন , নাজিম , জাফর ভাই, বন্ধু জসিম উদ্দীন, লড়েন , মোহামমদ আলী ভাই, আকবর, এড: আকবর, এড : হেলাল, শাকিল খান, সহ অনেকেরই নব নব আগমনে সভাটি প্রানবন্ত হয়েছিল ক্ষনে ক্ষনে ।
আর পল্টু ,নজরুল, সুরাইয়া আপা, আলমগীর, লোটন, তাহের, রনজন, রনজিত, রিপন তালুকদার, তৈমুর মিঠু ,শওকত তালুকদার, সাহাব , সাখাওয়াত হোসেন নাছির , অধ্যাপক মনির , এম এ কাদের মানিক, সাইফুল, মিলন মামা, আর যীশু ভাইদের উপস্থিতি অনুষ্ঠানকে আরও প্রানবন্ত করে তুলেছিল ।

নাহার আপা আর সুরাইয়া হক আপার স্বামী সহ যোগদান আজকের বৈঠকের অন্যতম আকর্শন ছিল ।

ডিকেন্স মামা, সুরাইয়া আপা আর মনজু ভাই এর গান
কিছুক্ষনের জন্য হারিয়ে গিয়েছিলাম সেই টাউন হলে ।
আমি ও কি আর বসে থাকতে পারি ?

প্রান খুলে গাইলাম সবাইকে নিয়ে, সেই আগের মত ।
আরিফ মামার সেই জালাময়ী ভাষন আর ডি কে চৌধুরীর খালি গলার বক্তৃতা ছিল বেশ উপভোগ্য ।

লিংকন মামার সাংগঠনিক দক্ষতা এবং ছোট ভাই আলতাফের অসাধারন সুন্দর আয়োজন কখনও ভোলার নয় ।
আজকের আয়োজনে বোনাস হিসাবে উপহার ছিল কবি
রনজন বনিকের লেখা নতুন একটি উপন্যাসের (অন্তহীন বাসনায় শুন্যে ভাসে মন) মোড়ক
উন্মোচন ।
শেষ আকর্ষন ছিল বিপুল আপা, জাহান নুসরাত আখীর
নিজ হাতে বানানো পিঠা দিয়ে আপ্যায়ন ।
সব মিলিয়ে জমজমাট অসাধারন এক অনুষ্ঠান হয়ে গেল ।

বিভিন্ন ক্ষেত্রে মরনোত্তর গুনিজন সম্বর্ধনা, মেলা, সমৃতিচারন, গান, নাচ, আবৃত্তি, অভিনয়, পিঠা উৎসব, আরও বিভিন্ন চমকে আর শত হাজার টাউন্যাদের উপস্থিতিতে ২৩ ফেবরুযারীতে মুসলিম হল প্রাংগন আর অডোটোরিয়াম আলোকিত হয়ে উঠবে-
এই কামনায় আজকের মত বিনিময় সভাটি শেষ করা হয় ।


এখানে খুজুন


আরও পড়ুন