আজ মঙ্গলবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৮ ইং, ১১ বৈশাখ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



এক স্বপ্ন দেখা, স্বপ্নের পিছে ছুটে চলা মানুষের গল্প……

Published on 28 December 2017 | 7: 29 pm

:: ফারহানা ইয়াসমিন রীমা ::

Jahed Bauria Sandwip Jbs  আমাদের সকলের অতি প্রিয় মুখ। আমার সাথে পরিচয়ের বয়সসীমাটা বেশি হয়নি, মনে হয় এখনো দুবছর হয়নি। আমরা কাছাকাছি এলাকার, একই স্কুলে ও পড়েছি, তারপরে ও ওনি আমার হাজব্যান্ডের ক্লাসমেট। সে সুত্রেই সম্পর্কটা অনেক সুন্দর, সে সম্পর্কটা নিঁখাদ বন্ধুত্ব, বা ভাইবোনের মতই। ফেইসবুকের কিছু প্রিয় মানুষের মধ্যে ওনি ও একজন। শুরু থেকে দেখে এসেছি ওনার লালিত স্বপ্নটার পেছনে দৌঁড়ানোটা।জেনেছি ওনার বিন্দু বিন্দু জল দিয়ে সিন্ধু গড়ার প্রয়াসটা। সে স্বপ্নটা নিজের জন্য না।গ্রামের সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের জন্য একটা স্কুল করার।
আমরা যেখানে প্রতিনিয়ত নিজের স্বপ্ন বোনা নিয়ে ব্যস্ত, সেখানে এ মানুষটা অন্যের মুখে হাসি ফোটানোর স্বপ্নের পিছে ছুটে চলছেন, অনেকেরই দ্বারস্থ হয়েছেন। কেউ আশার বানী শুনিয়েছেন আবার কেউ চুপ থেকেছেন। অনেকে আবার এগিয়েও এসেছেন। ধন্যবাদ তাদের যারা এই মহতী কাজের সহযাত্রী হয়েছেন। আমার ফ্রেন্ডলিষ্টের অনেকেও আছেন অনেক বিত্তবান, যারা চাইলে এ রকম শ’খানেক স্কুল হতে পারে। প্রয়োজন শুধু ইচ্ছে আর আগ্রহ। কাউকে পুরো দায়িত্ব নিতে বলা হয়নি। যে যার অবস্থান থেকে তার সাধ্য অনুযায়ী অংশীদার হওয়ার অনুরোধ করছি।

অনেকের কাছে পাঁচ, দশ, বিশ হাজার টাকা কোন ব্যাপারনা। কিন্তু এ স্বপ্ন দেখা মানুষটার কাছে এটা অনেক বড় প্রাপ্তি।

আসুন আমরা সবাই মিলে এ স্বপ্ন দেখা মানুষটার স্বপ্নটাকে বাস্তবায়নে সহযোগীতা করি যে যার সামর্থ্য অনুযায়ী।এতে হয়তো আমরা লাভবান হবো না, কিন্তু এক স্বপ্ন দেখা মানুষের স্বপ্ন পূরণে অংশীদারতো হতে পারবো। কিছু অসহায় শিশুর সুন্দর জীবন গড়ার প্রচেষ্টার সহযাত্রী তো হতে পরবো। সবার অংশীদারিত্ব আশা করছি, হোক সেটা দুহাজার টাকা। বিন্দু থেকেই হয়তো সিন্ধু হবে একদিন।


Advertisement

আরও পড়ুন