আজ মঙ্গলবার, ১৯ জুন ২০১৮ ইং, ০৫ আষাঢ় ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



পরিবারে বোন থাকার উপকারীতা

Published on 27 December 2017 | 10: 13 am

পরিবারে দুই বোন কিংবা ভাইবোন থাকলে সবসময় খুঁনসুটি লেগেই থাকে। তবে বোন থাকার সুবিধা কত তা হয়তো অনেকেরই জানা নেই। গবেষনায় দেখা গেছে, যাদের বোন আছে তারা তাদের ভাই অথবা বোনকে অনুভূতিপ্রবণ হতে সাহায্য করে, মনের জোর বাড়াতে উৎসাহ দেয়। গবেষণায় এটাও প্রমাণিত হয়েছে, বোন থাকলে ছেলেমেয়েরা অনেক বেশি সন্তুষ্টি নিয়ে বড় হয়। ইংল্যাণ্ডের ডি মন্টফোর্ট ইউনিভার্সিটি এবং আলস্টার ইউনিভার্সিটির গবেষক দল ১৭ থেকে ২৫ বছর বয়সী ৫৭১ জন তরুণ তরুণীর ওপর জরিপ চালিয়ে এই সিদ্ধান্তে পৌঁছান।গবেষক দল অংশগ্রহণকারীদের বিভিন্ন ধরনের মনস্তাত্ত্বিক প্রশ্ন করেন। এতে দেখা যায়, যাদের বোন আছে তারা নিজের ভাইবোনদের অনুভূতি প্রকাশ করতে উৎসাহ দিয়েছে, যা তাদের মানসিক স্বাস্থ্য ভাল থাকার ব্যাপারে বড় ভূমিকা রাখছে। গবেষক দলের একজন টনি ক্যাসিডি বলেন , বোনেরা অন্যদের সঙ্গে যোগাযোগ বাড়াতে এবং পরিবারের মধ্যে সংহতি বজায় রাখতে ভাইবোনদের উৎসাহ দেয়। অন্যদিকে ভাইদের স্বভাব হয় ঠিক এর বিপরীত। ক্যাসিডি আরও বলেন, অনুভূতির বহিঃপ্রকাশ একজন মানুষের মানসিক সুস্থতা বজায় রাখতে দারুনভাবে সাহায্য করে। আর বোনেরা ঠিক এই কাজটিই করে।

গবেষকরা বলছেন, স্বভাবগত ভাবেই নিজেদের কিছু নিয়ে অন্যের সঙ্গে কথা বলতে ছেলেরা পছন্দ করে না। একসঙ্গে ছেলেরা মানে ভাইয়েরা থাকা অর্থই হল নিজেদের কথা না বলা বা নীরব থাকা। আর মেয়েদের স্বভাবই হলো এই নীরবতা ভেঙ্গে ফেলা। গবেষক ক্যাসিডি বলেন, কোন শিশু বিষাদগ্রস্ত থাকলে এই গবেষণা তাকে সেই অবস্থা থেকে বের হতে সাহায্য করবে। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের ব্রিংহাম ইয়ং ইউনিভার্সিটির এক দল গবেষক একটির বেশি শিশু আছে এমন ৩৯৫ টি পরিবারের ওপর জরিপ চালিয়ে দেখেছেন,যাদের বোন আছে তারা অনেক বেশি দয়ালু মানসিকতার হয়।  সূত্র : হিন্দুস্তান টাইমস


এখানে খুজুন


আরও পড়ুন