আজ বুধবার, ২০ জুন ২০১৮ ইং, ০৬ আষাঢ় ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



ব্রাইডাল ফেয়ারে উপচেপড়া ভিড় ।। গোল্ড ছেড়ে ডায়মন্ডে আগ্রহ চট্টগ্রামবাসীর

Published on 20 November 2016 | 3: 26 am

চারদিকে চোখ ধাঁধানো অলংকার। হীরে এবং স্বর্ণের অলংকারের বিশাল সম্ভার। শোকেজে থরে থরে সাজানো সোনা এবং হীরের নজরকাড়া সব অলংকার। আর অলংকারের এই পসরা থেকে নিজেদের পছন্দের অলংকারটি কিনছেন বন্দর নগরীর সৌখিন নারীরা। কেবল কী নারী? বহু পুরুষও থরে থরে সাজানো অলংকার খুঁটিয়ে খুঁটিয়ে দেখছেন। কিনে দিচ্ছেন প্রিয়জনকে। নগরীর ইউনুস্কো সিটি সেন্টারের ৬ষ্ঠ তলায় ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড ও ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড লাইফস্টাইলের নিজস্ব শোরুমে শুরু হওয়া চারদিনব্যাপী ব্রাইডাল ফেয়ারে থরে থরে সব অলংকার প্রদর্শিত হচ্ছে। ‘দি আর্ট অব বিউটি’ স্লোগানে শুরু হওয়া হীরা ও স্বর্ণের গহনার এই মেলার আজ সমাপনী দিন।

১৭ নভেম্বর থেকে শুরু হওয়া ব্রাইডাল ফেয়ারে প্রতিদিনই দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভিড়। ক্রেতার হাতে আন্তর্জাতিক মানের জুয়েলারি ও লাইফস্টাইল পণ্য তুলে দিতেই এ মেলার আয়জন। ব্রাইডাল ফেয়ারে গোল্ড ছেড়ে ডায়মন্ডে চট্টগ্রামবাসীর আগ্রহ চোখে পড়ার মত। এক ছাদের নিচে বিয়ের গহনা কিনতে পেরে আনন্দিত ক্রেতারা। আজ মেলার শেষ দিনে থাকছে আইফোন সেভেন জিতে নেয়ার সুযোগ (শর্ত সাপেক্ষে)। এ ছাড়াও থাকছে ডায়মন্ড জুয়েলারির উপর ৩০% পর্যন্ত ছাড়। গোল্ড জুয়েলারির মেকিং চার্জ ফ্রি। ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড লাইফ স্টাইল এর পণ্যেও থাকছে ৩০% ছাড়।

মেলা সর্ম্পকে ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও এফবিসিসিআই এর পরিচালক দিলীপ কুমার আগরওয়ালা বলেন, আমরা বিশ্বমানের অলংকার দেশেই দিতে চাই। ঢাকার পরেই বন্দরনগরীতে আমাদের বড় বাজার। আমরা ঢাকা এবং চট্টগ্রামে সব সময় উন্নত মানের নজরকাড়া ডিজাইনের সব অলংকার উপস্থাপন করি। আমরা মেলায় এমন কিছু পণ্য উপস্থাপন করি যা সচরাচর শোরুমে থাকে না। মেলার জন্য বাড়তি মনযোগ দিয়ে আমরা কিছু অংলকার তৈরি করি। এগুলো খুব সহজেই মানুষের নজর কাড়ে। তিনি বলেন, আমাদের অলংকার বিশ্বমানের। হীরা বা স্বর্ণের মান নিয়ে আমরা কোন আপোষ করিনা। দিলীপ কুমার আগরওয়ালা বলেন, যারা কেনাকাটার জন্য বিদেশে যান বা যেতে চান, তারা অন্তত একবারের জন্য হলেও আমাদের শোরুম ঘুরে যেতে পারেন। আজও সকাল এগারটা থেকে শুরু হয়ে রাত নয়টা পর্যন্ত মেলা চলবে।


এখানে খুজুন


আরও পড়ুন