আজ মঙ্গলবার, ২১ আগষ্ট ২০১৮ ইং, ০৬ ভাদ্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



আমি স্তম্ভিত, মর্মাহত, বাকরুদ্ধ, একি নিষ্ঠুরতা !

Published on 06 July 2016 | 7: 18 pm

:: রুমানা নাসরীন ::

আমি স্তম্ভিত, মর্মাহত, বাকরুদ্ধ, একি নিষ্ঠুরতা !!!!!!!!!!!এই বাচ্চাগুলো তো আমার/আপনার। ওদের তো বাঁচাতে হবে।আমাদের ভাবতে হবে কেন আমাদের বাচ্চারা এত নিষ্ঠুর পথ বেছে নিল। কেন ধর্ম ব্যবহার করে আল্লাহু আকবর বলে এতগুলো মানুষকে জবাই করে হত্যা করল। কে করাল? কিভাবে পারল এমন নিষ্ঠুরতা? গুলশান ঘটনা যারা ঘটিয়েছে তারাতো কোনদিন মুরগী জবাইও দেখেনি তাহলে কিভাবে এমন নির্মমতা ঘটাল। এর জন্য দায়ী কে??? সমাজ, রাজনীতি নাকি পরিবার ???????

আমি মনে করি পরিবার। বাবা/মা এর দায় এড়াতে পারেনা। বিপথে যারা গেছে তাদের বাবা, মা ই অনেক বেশী দায়ী। সন্তান মাদ্রাসায় পড়ুক আর ইংলিশ মিডিয়ামে পড়ুক আমার সন্তান আমারই। আধুনিকতার ছোয়ায় মা/বাবা খেয়ালই করছেনা সন্তানের দিকে। সন্তানের জন্য সময় করতে পারছেনা। সন্তানকে আদর সোহাগ করার সময় নেই। সন্তানকে ভালবাসা দেখানোর সময় নেই। আদর করে দু’লোকমা ভাত খাওয়ানোর সময় নেই। আদব কায়দা শেখানোর সময় নেই। বড়দের সম্মান করতে শেখানো হয়না। গরীবদের দয়া করতে শিখানো হয়না। সৎ পথে চলবে, সত্য কথা বলবে, মিথ্যা বলা মহাপাপ, এই সব আর এখনকার বাবা, মারা শেখাননা বাচ্চাদের। এমন ভাবে বাচ্চারা বড় হয় বাবা/মাকেও যাই ইচ্ছে বলে ফেলে।

বাচ্চাটা আমি জন্ম দিয়েছি। আমি আমার সৎ আইডোলজি দিয়ে বড় করব তার সময় নেই। আমরা সময়ের অভাবে খেয়াল করছিনা আমার সন্তান কার সাথে মিশছে, ওদের মগজ ধোলাই কারা করছে, কারা ওদের বিপথে নিচ্ছে, কারা আমাদের সন্তানকে মাদকসেবী বানাচ্ছে।শিক্ষাক্ষেত্রে কার সাথে মিশছে, কেমন শিক্ষক তাকে শিক্ষা দিচ্ছে, কেমন বন্ধুর সাথে মিশছে।

না আমাদের সময় নেই। সন্তানের জন্য সময় নেই!!!!!!!

ছেলেমেয়েরা তাদের ইচ্ছে মত চলছে।বাবা/মা শুধু তাদের ইচ্ছে মত কাড়িকাড়ি টাকা, দামী মোবাইল, ল্যাপটপ,দামী স্কুল, দামী কোচিং, দামী গাড়ি দিচ্ছে। কিন্তু খবর রাখছেনা এত টাকা কি করছে, মোবাইল /ল্যাপটপ দিয়ে কি করছে, স্কুলে যাচ্ছে কিনা, কোচিং এর নামে কোথায় যাচ্ছে। এই সুযোগে ছেলেমেয়েরা বিপদগামী হচ্ছে/জন্গী হচ্ছে। নাড়িছেড়া ধন চিরতরে হারিয়ে যাচ্ছে।

ওদের বাচাতে হবে। আমরা ভালবাসা দিয়ে, স্নেহ মায়া মমতা দিয়ে ওদের ঘরমুখি করতে হবে। ওদের আমার ভাষা বাংলা শিখাতে হবে। আমার সংষ্কৃতি, আমার ধর্ম, আমার দেশ,আমার আইডলজি
শিখাতে হবে।আমাদের সন্তান বাঁচলে আমরা বাঁচব, দেশ বাঁচবে, জাতি বাঁচবে।

*নবপ্রজন্ম* কঠিন সময়ের মাঝে তোমরা আটকে গেছ। তোমাদের যুদ্ধে নামতে হবে। নীতি আদর্শ্য রক্ষার যুদ্ধ, মুক্ত চিন্তা প্রকাশের যুদ্ধ, মানবিকতার জন্য যুদ্ধ, সত্য ন্যায়ের জন্য যুদ্ধ, মৌলবাদ বিরোধী যুদ্ধ, মাদক বিরোধী যুদ্ধ। এই যুদ্ধে তোমাদের জয়ী হতেই হরে। সুসন্তান হয়ে মা/বাবার সম্মান রক্ষা করবে। সুনাগরিক হয়ে দেশের সম্মান রক্ষা করবে। মাথা উঁচু করে দাড়াতে হবে।

জয় তোমাদের হবেই। তোমরাই আমাদের দেশের সম্মান রক্ষা করবে। বাংলাদেশ তোমাদের। তোমরাই পারবে দেশী-বিদেশী সমস্ত চক্রান্ত রুখে দিতে। তোমরাই পারবে মৌলবাদী জন্গীদের রুখতে। 

আগে মনুষ্যত্ব তারপর ধর্ম। যার মনুষ্যত্ব নাই তার আবার কিসের ধর্ম? ধর্ম যার যার বাংলাদেশ আমাদের সবার।

*** রুমানা নাসরীন- সহ সভাপতি, বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামীলীগ, উত্তর জেলা, চট্টগ্রাম।০৫-০৭-২০১৬


এখানে খুজুন


আরও পড়ুন