ভাসমান জেটি ও দু’টি জাহাজ চালু করতে হবে

 

মোঃ পারভেজ সন্দ্বীপী ::::

বাংলাদেশের অন্যতম সেরা উপজেলা আমাদের এই সন্দ্বীপ। যার সুনাম দেশে বিদেশে সব স্থানে। বাংলাদেশের অন্য যে  কোন উপজেলার তুলনায় আমরা ২০ বছর এগিয়ে আছি। কারন এই দ্বীপ মাতার সন্তানদের হাত ধরে বাংলাদেশের শতকরা ৮ থেকে ১০ ভাগ রেমিটেন্স আসে।
কিন্তু আজ দুঃখের সাথে বলতে হয় আমাদের মত এত খারাপ যোগাযোগ ব্যবস্থা বাংলাদেশের কোথাও নাই। আপনারা ইতি পূর্বে জানতে পেরেছেন এই নদী দিয়ে যাতায়াত করতে গিয়ে সাবেক এমপি এবং বর্তমান এমপি অনেক স্বজন হারিয়েছেন। এই নদীতে দুর্ঘটনার শিকার হয়ে বর্তমানে একটি মেয়ে চট্রগ্রামে চিকিৎসাধীন আছেন। এখন সন্দ্বীপ বাসির প্রাণের দাবী পূরণে আমাদের জনপ্রতিনিধিদের অনেক করণিয় কাজ আছে।
কাজ গুলো হলঃ

১। যত দ্রত সম্ভব গুপ্তাছড়া ঘাট দিয়ে নদীর উভয় পাশে স্থায়ি ভাসমান জেটি স্থাপন করা।
২। দুইটি জাহাজ চালু করা। একটি সন্দ্বীপের দিক হতে সকাল ৮ টা সময় ছেড়ে যাবে, আরেকটি চট্রগ্রাম দিক হতে সকাল ৮ টা সময় ছেড়ে আসবে এবং বিকাল ৪ টার সময় সর্বশেষ একটি সন্দ্বীপ হতে ছেড়ে যাবে ও একটি চট্রগ্রামের দিক হতে ছেড়ে আসবে ।
এম পি মহাদয়ের নিকট আমার প্রশ্ন চট্রগ্রাম বন্দরে যদি শত শত ভাসমান জেটি থাকে বা সরকার দিতে পারে আমরা সন্দ্বীপবাসী পাব না কেন?

লেখকঃ (বাংলাদেশ সেনাবাহিনিতে বগুড়ায় চাকুরিরত)।

*** লেখকের প্রস্তাবটির সাথে আনেকেই একমত পোষন করেছেন। প্রিয় পাঠক, এ ব্যাপারে আপনার মতামত জানান।-সম্পাদক, সোনালী নিউজ।

শাহাদাৎ আশরাফ শাহাদাৎ আশরাফ

Leave a Reply

Top
%d bloggers like this:
Web Design BangladeshBangladesh Online Market