দশ খাদ্যে পিচ্ছিল আর্টারি, সুস্থ থাকুন

আর্টারি সরু হয়ে গেলে কিংবা আর্টারিতে ব্লক দেখা দিলে তাই কিন্তু হৃদরোগের মূল কারণ। এই কারণেই বুকে ব্যাথা হয়, স্ট্রোক হতে পারে, হার্ট অ্যাটাকও হয়ে বসতে পারে। আর হৃদরোগ তা একবার ধরা পড়লে, চিকিৎসা-পথ্যে রোগী হয়তো বেঁচেও থাকেন কিন্তু বলা চলে তাদের এক পা কবরেই দেওয়া থাকে।

বিশ্বে এই হৃদরোগকে অন্যতম ঘাতক ব্যাধির একটি হিসেবে ধরা হয়। তবে আশার কথা হচ্ছে আপনার খাদ্যাভ্যাসই আপনাকে রক্ষা করতে পারে এই ব্যাধির আক্রমন থেকে। যদিও উত্তরাধিকারেও এই রোগ-ভোগের শিকার আপনি হতে পারেন। স্বাস্থ্যকর খাবার খেলেও হতে পারেন এই রোগে আক্রান্ত। অনেক শিশু জন্মই নেয় আর্টারিতে ব্লক কিংবা সরুত্ব নিয়ে। কিন্তু সেটি ভিন্ন কথা। সুস্থ্য স্বাভাবিক থাকতে হলে, আর আপনার আর্টারিকে ব্লকমুক্ত ও রক্ত চলাচলের উপযোগী করে রাখতে খাদ্যাভ্যাস একটা ভালো ভূমিকা রাখবে।

ক্র্যানবেরিকে বলা হয় বিশ্বের সবচেয়ে স্বাস্থ্যকর খাবার। সুস্বাদু লাল রঙের এই ছোট ফলটির অনেক গুন। এই ফল আপনার শরীরে কলেস্টেরল লেভেল সবচেয়ে নীচে নামিয়ে রাখবে। এটি সবচেয়ে সম্মৃদ্ধ অ্যান্টি-অক্সিড্যান্ট, যা আপনার সুস্বাস্থ্যের জন্য উপযোগী।

অ্যাসপ্যারাগাস আপনার আর্টারিই কেবল পরিষ্কার রাখবে না, এই সব্জিজাতীয় খাবারটি আপনার রক্তের চাপ কমিয়ে রাখতেও শরীরে ভূমিকা রাখবে। আর বলাই বাহুল্য সুস্বাস্থ্যের জন্য এটিও এক উপযোগী খাবার।

পারসিমন আরেকটি খাবার যা অ্যান্টি অক্সিড্যান্ট আর পলিফেনলে ভরা। এই খাদ্য শরীরে ক্ষতিকর এলডিএল কমিয়ে রাখতে সহায়তা করে। এছাড়া খাবারটি ভীষণ আঁশ সম্মৃদ্ধ।

গ্রিন টি খেলে ওজন কমবে। গ্রিন টি পেটে থাকলে আপনার হজম প্রক্রিয়ায় কলেস্টেরলকে শরীরে বসে যেতে দেবে না। প্রতিদিন অন্তত দুই কাপ করে গ্রিন টি খেলে কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই আপনি পেয়ে যাবে সম্পূর্ণ সাবলীল রক্ত চলাচলের উপযোগী আর্টারি।

হলুদ হোক আপনার প্রতিদিনকার খাবারের অনুসঙ্গ। এতে নিঃসন্দেহে আপনার আর্টারি থাকবে ব্লকমুক্ত।

তেলযুক্ত ফল অ্যাভাকাডো আপনার শরীরে ভালো চর্বি জমতে সহায়তা করবে। আর এতে কেবল ত্বক ভালো থাকবে তাই নয়, ভালো থাকবে আপনার হৃদযন্ত্রটিও।

স্পিরুলিনা বেশ পুষ্টিকর আর এখনকার সময়ে বেভারেজ তৈরির সবচেয়ে উপকারী উপকরণ হিসেবে দেখা হয়। প্রতিদিন এককাপ খেলে তার উপকার সবচেয়ে বেশি পাবে আপনার হৃদযন্ত্র।

আনার আপনার আর্টারিকে বিপদমুক্ত রাখতে সহায়তা করবে। শরীরে প্রচুর পরিমান নাইট্রিক অক্সাইড তৈরি করে আপনার আর্টারিকে সবসময় খোলা রাখবে এই খাদ্য।

দারুচিনি আরেক অ্যান্টি-অক্সাইড সম্মৃদ্ধ খাবার। এই মসলাজাতীয় খাদ্য আপনার আর্টারিকে ভালো রাখবে আর শরীরে রক্তের অক্সিডেটেশন প্রতিরোধ করে হৃদযন্ত্রটিকে নিরাপদ রাখবে।

প্রচুর আঁশ আর ভিটামিন কে সম্মৃদ্ধ ব্রোকলি যে ক্যালসিয়াম দেবে তা আপনার আর্টারিকে যে কোনও সমস্যা থেকে সুরক্ষা দেবে

Mahabubur Rahman Mahabubur Rahman

Leave a Reply

Top
%d bloggers like this:
Web Design BangladeshBangladesh Online Market