অস্ত্র মামলায়ও রনির জামিন

অবশেষে অস্ত্র মামলায় হাইকোর্ট থেকে জামিন পেলেন নগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল আজিম রনি। গতকাল বিচারপতি মো. হাবিবুল গণি ও বিচারপতি মো. আকরাম হোসেন চৌধুরীর হাইকোর্ট বেঞ্চ রনির ছয় মাসের অন্তবর্তীকালীন জামিন মঞ্জুর করেন। এসময় রনিকে কেন স্থায়ী জামিন দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি হাইর্কোট। জামিন পাওয়ায় রনির মুক্তিতে আর কোনো বাধা থাকল না। আদালত সূত্রে জানা গেছে, গত ৭ মে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রভাব বিস্তারের অভিযোগে হাটহাজারী উপজেলার মির্জাপুর থেকে রনিকে আটক করে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। এসময় তাকে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন বিধিমালা ২০১৬ এর দু’টি ধারায় এক বছর করে মোট দুই বছর কারাদণ্ড দেন নির্বাচনে দায়িত্বরত জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট হারুনুর রশিদ। এরপর রনিকে হাটহাজারী থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। ওই সময় পুলিশ জানিয়েছিল, রনির কাছে একটি নাইন এমএম পিস্তল, ১৫ রাউন্ড গুলি ও ২৬ হাজার টাকা পাওয়া যায়। পরে পুলিশ হাটহাজারী থানায় রনির বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে একটি মামলা দায়ের করে এবং ৮ মে আদালতে প্রেরণ করে।

এদিকে গত ২৫ মে চট্টগ্রাম জেলা ও দায়রা জজ আদালত দুই বছরের কারাদণ্ডাদেশের বিরুদ্ধে আপিল করলে জামিন পান রনি। তবে একই আদালত অস্ত্র মামলায় জামিন নামঞ্জুর করেন। এরপর রনির পক্ষে হাইকোর্টে জামিনের আবেদন জানানো হয়।

গতকাল হাইকোর্টে রনির পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট শ ম রেজাউল করিম ও অ্যাডভোকেট আব্দুর রাজ্জাক রাজু। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল রোনা নাহরীন ও সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল মনজু নাজনীন। শ ম রেজাউল করিম গণমাধ্যমকে বলেন, রনিকে ছয়মাসের জামিন দিয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। রুলে তাকে কেন স্থায়ী জামিন দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়েছেন।

প্রসঙ্গত, নুরুল আজিম রনি নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক মেয়র এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর অনুসারী।

Mahabubur Rahman Mahabubur Rahman

Leave a Reply

Top
%d bloggers like this:
Web Design BangladeshBangladesh Online Market