ভারতের হস্তক্ষেপ চাইনি, দাবি রানা দাসগুপ্তের

সংখ্যালঘু হিন্দুদের নিরাপত্তা ইস্যুতে প্রতিবেশী ভারতের হস্তক্ষেপ চেয়ে কোনো বক্তব্য দেননি বলে দাবি করেছেন হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ও মানবাধিকারকর্মী রানা দাসগুপ্ত।

বাংলাদেশে হিন্দুদের সুরক্ষার জন্য রানা দাসগুপ্ত ভারতের হস্তক্ষেপ চেয়েছেন, এমন খবর নিয়ে তীব্র বিতর্ক শুরু হয়েছে।

এ পরিপ্রেক্ষিতে বিবিসি বাংলাকে দেয়া সাক্ষাৎকারে রানা দাসগুপ্ত এ দাবি করলেন। তবে তিনি পিটিআই’র খবরের কোনো প্রতিবাদও করেননি।

ভারতের রাষ্ট্রীয় সংবাদ মাধ্যম প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া বা পিটিআই’র বরাত দিয়ে বাংলাদেশ ও ভারতের কয়েকটি পত্রিকা ওই খবর প্রকাশ করে।

ভারতের অন্যতম শীর্ষ স্থানীয় সংবাদপত্র দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, বাংলাদেশের হিন্দুদের সুরক্ষার জন্য রানা দাসগুপ্ত ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘আমরা মনে করি, হিন্দু সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশ হিসেবে ভারতের কিছু একটা করা উচিত। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ওপর আমাদের অনেক আশা। বাংলাদেশের হিন্দুদের নিরাপত্তার জন্য তার (নরেন্দ্র মোদি) উচিত বিষয়টি বাংলাদেশ সরকারের কাছে তুলে ধরা।’

কিন্তু বিবিসিকে দেয়া সাক্ষাৎকারে রানা দাসগুপ্ত বলেন, ভারতের হস্তক্ষেপ চেয়ে তিনি কোনো বক্তব্য দেননি।

তিনি বলেন, ‘আমাদের যে সংবিধান, এই সংবিধানেই বলা আছে- নাগরিকদের সুরক্ষা, নিরাপত্তা এটির দায়িত্ব হচ্ছে রাষ্ট্রের বা সরকারের। সেখান অপর কোনো রাষ্ট্রের বা রাষ্ট্রীয় নেতার কোনো ভূমিকা থাকতে পারে বলে আমাদের কাছে মনে হয় না।’

এদিকে রানা দাসগুপ্ত তাকে ভুলভাবে উদ্ধৃত করার দাবি করলেও পিটিআই’র দিল্লি ও কলকাতা অফিসের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কয়েকজন জানিয়েছেন বিষয়টিতে রানা দাসগুপ্ত আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো প্রতিবাদ পাঠায়নি।

পিটিআই’র কলকাতা এবং দিল্লি অফিসের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কয়েকজন জানান, রানা দাসগুপ্ত যেভাবে বলেছেন, তাকে ঠিক সেভাবেই উদ্ধৃত করা হয়েছে।

Mahabubur Rahman Mahabubur Rahman

Leave a Reply

Top
%d bloggers like this:
Web Design BangladeshBangladesh Online Market