ছাত্রকে হত্যার পর অন্ডকোষ কেটে নিয়ে গেল পাষণ্ডরা

রংপুরের পীরগঞ্জে সুমন মিয়া নামে ১০ শ্রেণির এক মাদ্রাসা ছাত্রকে গলায় রশি পেঁচিয়ে হত্যার পর লাশটি গাছের সঙ্গে হাত-পা বেঁধে রাখা হয়েছে। এছাড়া তাকে হত্যার পর একটি অন্ডকোষ কেটে নিয়ে গেছে পাষণ্ডরা। শনিবার ভোরে উপজেলার খষ্ট্রি গ্রাম থেকে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।

সুমন মিয়া পীরগঞ্জের বড়আলমপুর ইউনিয়নের খট্রি গ্রামের সাইদুর রহমানের ছেলে। সে পাটগ্রাম দাখিল মাদ্রাসার ১০ম শ্রেণির ছাত্র ছিল।

জানা গেছে, সুমন তার গ্রামের একটি সমিতির ক্যাশিয়ার হিসেবে দায়িত্ব পালন করতো। শুক্রবার রাতে ওই সমিতির মিটিং হওয়ার কথা ছিল। তার সঙ্গে সমিতির সদস্যরা যোগাযোগ করলে সে মিটিংয়ে যেতে অসম্মতি জ্ঞাপন করে।

পরে রাতে সে পীরগঞ্জ উপজেলা সদর থেকে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেয়। কিন্তু সে বাড়িতে পৌঁছেনি। ভোরে তার বাড়ির পাশে একটি বাগানের মধ্যে গাছের সঙ্গে হাত-পা বেঁধে রাখা অবস্থায় তার লাশ পাওয়া যায়।

গলায় রশি পেঁচিয়ে সুমনকে হত্যার পর হত্যাকারীরা একটি অন্ডকোষ কেটে নিয়ে গেছে বলে পুলিশ সুরত হাল রিপোর্টে উল্লেখ করেছে।

পীরগঞ্জ থানার ওসি রেজাউল করিম বলেন, অন্ডকোষ কেটে নেয়ার ঘটনায় নারীঘটিত বিষয়ে হত্যা করা হতে পারে। তবে তদন্ত ছাড়া এখন কিছুই বলা সম্ভব নয়।

Mahabubur Rahman Mahabubur Rahman

Leave a Reply

Top
%d bloggers like this:
Web Design BangladeshBangladesh Online Market